মঙ্গলবার, ১৮ জানুয়ারী ২০২২ খ্রীষ্টাব্দ | ৫ মাঘ ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

মন্ত্রিত্বের লোভে অমানুষ হওয়া উচিত নয়: ডা. জাফরুল্লাহ



 

গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা ডা. জাফরুল্লাহ চৌধুরী বলেছেন, ‘থুতু উপরে ফেললে নিজের গায়ে পড়তে পারে। সুতরাং এ রকম কাজ করবেন না। আমাদের শালীন হওয়া দরকার। মন্ত্রিত্বের লোভে অমানুষ হওয়া উচিত নয়।’

গতকাল সোমবার জাতীয় প্রেস ক্লাব মিলনায়তনে ‘বাংলাদেশ যুব অধিকার পরিষদের কাউন্সিল-২০২১’ উপলক্ষে ‘জাতি গঠনে যুব সমাজের ভূমিকা’ শীর্ষক আলোচনা সভায় তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসানের বিতর্কিত বক্তব্য প্রসঙ্গে এসব কথা বলেন তিনি।

ডা. জাফরুল্লাহ বলেন, ‘অনতিবিলম্বে প্রধানমন্ত্রীর উচিত হবে তাকে বরখাস্ত করা। উনি (তথ্য প্রতিমন্ত্রী) ক্যানসারের ডাক্তার। ক্যানসারের বীজ উনার মাথার ভেতরে ঢুকে গেছে। বেচারা

দীর্ঘদিন ধরে চেষ্টা করছেন মঞ্চে আসার জন্য। উনি হয়তো ভাবছেন, এ জাতীয় কথা বললে উনাকে হয়তো পূর্ণ মন্ত্রী বানাবেন। কিন্তু উনার ক্যানসার উনার মাথাটা খেয়ে দেবে।’

ছাত্রদের হাফ ভাড়ার বিষয়ে গণস্বাস্থ্য কেন্দ্রের প্রতিষ্ঠাতা বলেন, ‘ছাত্ররা যা পারে সরকার তা পারে না। সারাবিশ্বে হয় ছাত্রদের হাফ ভাড়া রয়েছে, না হয় পুরোটা ফ্রি রয়েছে। এটা নিয়ে ঝগড়া করার কী আছে।’ ছাত্রদের হাফ ভাড়া দেবে বলে বাস মালিকদের ক্ষতি করা যাবে না বলে মন্তব্য করে তিনি বলেন, ‘বাস মালিকদের ভ্যাট মওকুফ করে দিতে হবে। ভ্যাট প্রত্যাহার করে দিলে তাদেরও ক্ষতি হবে না, আমাদেরও ক্ষতি হবে না।’

তিনি বলেন, ‘স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেছেন তাদের ভ্যাকসিন কিনতে ১২ কোটি ডলার খরচ হয়েছে। কিন্তু আমরা অর্ধেক দামে ভ্যাকসিন দিতে চেয়েছিলাম, তারা নেয়নি। এটার কি বিচার হবে না? এই বিচার স্বাস্থ্যমন্ত্রীর হবে, প্রধানমন্ত্রীর হবে।’

তিনি আরও বলেন, বর্তমান পরিস্থিতি থেকে বেরিয়ে আসতে আগামী দুই বছরের জন্য জাতীয় সরকার দরকার, যেখানে সবাই জনগণের প্রতিনিধিত্ব করবে। প্রতিটি রাজনৈতিক দল থেকে দু-একজন করে থাকবেন। জনগণ সেখানে তাদের মতামত দেবেন।

আলোচনা সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন গণঅধিকার পরিষদের সদস্য সচিব নুরুল হক নুর, বিপ্লবী ওয়ার্কার্স পার্টি সাধারণ সম্পাদক সাইফুল হক, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক উপাচার্য ড. আনোয়ারুল্লাহ চৌধুরী, রাষ্ট্রবিজ্ঞানী অধ্যাপক দিলারা চৌধুরী প্রমুখ।